করোনা মহামারি কারো কারো জন্য সুবর্ণ সময় হয়ে উঠেছে। এ সময়ে বেশির ভাগ শিক্ষার্থী বইবিমুখ। তাদের হাতে মোবাইল ফোন বা গেমস খেলার সরঞ্জাম। পিতামাতা সন্তানের ভবিষ্যত নিয়ে উদ্বিগ্ন। কিন্তু এই সময়টাকে কাজে ব্যবহার করেছে যুক্তরাষ্ট্রের নর্থ ক্যারোলাইনার সালিসবারির মাত্র ১২ বছর বয়সী বালক মাইক উইমার। গত একটি বছর সে বাসায় বসে অতিরিক্ত ক্লাস করেছে। আর তার ফলও পেয়ে যাচ্ছে। একই সঙ্গে একই সপ্তাহে হাইস্কুল এবং কলেজ থেকে গ্রাজুয়েশন করছে।

জানা গেছে, চার বছরের স্কুলকোর্স মাত্র এক বছরে সম্পন্ন করেছে উইমার। দুই বছরের হাইস্কুল কোর্স এবং দুই বছরের এসোসিয়েট ডিগ্রি কোর্স সম্পন্ন করেছে এ সময়ে। এ জন্য আগামী ২১ মে সে রোয়ান-ক্যাবারাস কমিউনিটি কলেজ থেকে গ্রাজুয়েশন করবে। অন্যদিকে ২৮ মে কনকর্ড একাডেমি হাই স্কুল থেকেও পড়াশোনা শেষ করে সনদ পাবে। তবে এটা উইমারের সব সময়ের পরিকল্পনা ছিল না। সে বলেছে, এ সময়ে ডবল ক্লাস করা সম্ভব এবং অনুধাবন করে, তার এটা করা উচিত।

উইমার বলেছে, তাদের সঙ্গে সে ভালভাবে মিশে চলতে পারবে। তাকে গত বছর হোমকার্মি কোর্টে মনোনয়ন দেয়া হয়েছে। উইমারের আগ্রহ রয়েছে রোবোটিক্সে। সে সিএনএনকে বলেছে, সে একজন গণিত এবং বিজ্ঞানপিপাসু। এরই মধ্যে সে নিজের ওয়েবসাইট ‘নেক্সট এরা ইনোভেশনস’ চালু করেছে। সেই ওয়েবসাইটের মতে, সে শিখেছে তার সব রকম প্রোগ্রামিং এবং রোবট বিষয়ক শিক্ষা। সূত্র : সিএনএন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

English