ভোট প্রচারে উসকানিমূলক বক্তব্য রাখার অভিযোগে বিজেপি নেতা অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে মামলা করল তৃণমূল। কলকাতার মানিকতলা থানায় দায়ের করা অভিযোগে দাবি করা হয়েছে, ভোটপ্রচারে এই অভিনেতার বক্তব্যের জেরেই ফল ঘোষণার পর হিংসা ছড়িয়েছে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে। আক্রান্ত হচ্ছেন তৃণমূল কর্মীরা।

তৃণমূলের দাবি, ভোটপ্রচারে বিভিন্ন জায়গায় ছায়াছবির সংলাপ বলে প্ররোচনা দিয়েছেন মিঠুন চক্রবর্তী। কোথাও বলেছেন, ‘জলঢোড়াও নই, বালিবোড়াও নই। আমি জাত গোখরো। এক ছোবলেই ছবি!’ কোথাও বলেছেন, ‘মারবো এখানে, লাশ পড়বে শ্মশানে।’

উল্লেখ্য এবারের বিধানসভা ভোটের আগে কৈলাস বিজয়বর্গীয়, মুকুল রায়, শুভেন্দু অধিকারীদের উপস্থিতিতে বিজেপি শিবিরে যোগ দিয়েছিলেন মিঠুন চক্রবর্তী। সেখানে তার মুখে শোনা গিয়েছিল। “আমি জলঢোঁড়াও নই, বেলেবোড়াও নই। আমি জাত গোখরো, এক ছোবলে ছবি।”

একই সাথে বিজেপি নেতা দিলীপ ঘোষের বিরুদ্ধেও অভিযোগ করেছে তৃণমূল। তাদের দাবি, ভোটের পরে তৃণমূল নেতাদের বুঝে নেওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তিনি। বলেছেন, ‘বদল আর বদলা, দুইই হবে।’

মিঠুন ও দিলীপের এই সমস্ত মন্তব্যের বিরুদ্ধেই বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মানিকতলা থানায় গিয়ে লিখিত অভিযোগ জানান তৃণমূলের কর্মী-সমর্থকরা। থানার বাইরে প্ল্যাকার্ড হাতে দাঁড়িয়ে বেশ কিছুক্ষণ বিক্ষোভও দেখান তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

English