Friday, May 24, 2024
spot_img
Homeখেলাধুলামালয়েশিয়াকে হুঙ্কার দিয়ে রাখলেন ইব্রাহিম

মালয়েশিয়াকে হুঙ্কার দিয়ে রাখলেন ইব্রাহিম

মালয়েশিয়ায় এশিয়ান কাপ বাছাইয়ের মিশন শেষের পথে জামাল ভূঁইয়াদের। বাহরাইন ও তুর্কমেনিস্তানের কাছে হারের পর আগামীকাল শেষ ম্যাচ খেলবে স্বাগতিক মালয়েশিয়ার বিপক্ষে। শেষ হওয়া দুই ম্যাচ দুইরকম ছিল জামাল ভূঁইয়াদের। রক্ষণ মজবুত করে বাহরাইনের বিপক্ষে খেলে ২-০ গোলে হেরেছে  দল। আর তুর্কমেনিস্তানের বিপক্ষে তেঁড়েফুঁড়ে খেলে হেরেছে ২-১ গোলে। দ্বিতীয় ম্যাচটিতে বাংলাদেশ লড়াকু ফুটবল খেলেছে। সাহস করে খেললে যে প্রতিপক্ষের ওপর চড়াও হওয়া যায় তার উদাহরণ তুর্কমেনিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচটি। ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে ৫৪ ধাপ এগিয়ে থাকা তুর্কমেনিস্তানকে নাড়িয়ে দেয়ার পুঁজি নিয়ে আগামীকাল মালয়েশিয়ার বিপক্ষে মাঠে নামার কথা জানিয়েছেন বাংলাদেশ দলের ফরোয়ার্ড মোহাম্মদ ইব্রাহিম। 
মালয়েশিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের আগে আজ শেষ অনুশীলন করবে বাংলাদেশ দল। এর আগে গতকাল হোটেলেই জিম ও সুইমিং করেছেন জামাল ভূঁইয়ারা। দুই ম্যাচ হারার পর এই টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় প্রায় নিশ্চিত বাংলাদেশের। শেষ ম্যাচ থেকে কিছু অর্জন করতে পারলে সেটাই হবে বাংলাদেশের জন্য বড় পাওয়া। যদিও বাংলাদেশ এখন আর ১ পয়েন্ট পাওয়ার জন্য রক্ষণে জমাট থাকবে না। জয়ের জন্যও মরিয়া হবে।
চার ম্যাচের খরা কাটিয়ে বাংলাদেশ গোল পেলেও কাঙ্ক্ষিত জয় মেলেনি। তাই তুর্কমেনিস্তানর বিপক্ষে ওই গোল নিয়ে উচ্ছ্বাস-তৃপ্তি কোনোটাই নেই মোহাম্মদ ইব্রাহিমের। জাতীয় দলের এই ফরোয়ার্ড এখন তাকিয়ে মালয়েশিয়া ম্যাচের দিকে। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) মাধ্যমে পাঠানো ভিডিও বার্তায় ইব্রাহিমের কণ্ঠেও সেই আত্মবিশ্বাসের স্ফুরণ। স্বাগতিক মালয়েশিয়াকে সহজে ছেড়ে দেয়া হবে না- এমন বার্তা দিয়ে বসুন্ধরা কিংসের এই ফরোয়ার্ড বলেন, ‘মালয়েশিয়া অবশ্যই ভালো দল। কিন্তু আমরাও ওদেরকে সহজে ছেড়ে দেবো না। বাহরাইনের বিপক্ষে ওরা দুটো গোল সেট-পিসে দিয়েছে, বাহরাইন আমাদের চেয়ে অনেক শক্তিশালী দল, কিন্তু ওরাও আমাদেরকে এত সহজে গোল দিতে পারেনি। ইনশাল্লাহ আমরা মালয়েশিয়ার বিপক্ষে ভালো লড়াই করবো। আমরা যখন অনেক দর্শকের সামনে খেলি, তখন আমাদেরও ভালো লড়াই করার মনোভাব কাজ করে।’ সবশেষ চার গোলের তিনটিই বাংলাদেশ হজম করেছে সেট-পিস থেকে। এজন্য শুধু রক্ষণের দায় দেখছেন না ইব্রাহিম। বিষয়টি নিয়ে পুরো দলেরই কাজ করার প্রয়োজন জানিয়ে তুর্কমেনিস্তানের বিপক্ষে গোলকরা এই ফরোয়ার্ড বলেন, এই টুর্নামেন্টে ব্যক্তিগতভাবে আমার মনে হয়, সেট-পিসে আরও মনোযোগী হতে হবে। কারণ, চার গোলের মধ্যে তিনটিই সেট-পিসে খেয়েছি। শুধু ডিফেন্সের ভুল নয়, সেট-পিসের বিষয়টা পুরো টিম ওয়ার্কের বিষয়, সবাই এটা নিয়ে কাজ করতে হবে।’ আগের দুই ম্যাচের উদাহরণ টেনে ইব্রাহিম বলেন, ‘সবাই দেখেছে আমরা অনেক ভালো ফুটবল খেলেছি। শেষ পর্যন্ত ভাগ্যের সহায়তা পাইনি বলে পয়েন্ট হাতছাড়া হয়েছে। আমরা অন্তত একটা পয়েন্ট পেতে পারতাম। 
আমরা অনেকগুলো ম্যাচ এরকম জিততে জিততে কিংবা ড্র করতে করতে শেষ মুহূর্তে গোল হজম করে হেরে যাই, গতকালের ম্যাচও ওরকম ছিল। একটা সময় আমাদের মনে হয়েছিল আমরা জিতবো বা পয়েন্ট পাবো, কিন্তু আমাদের দুর্ভাগ্য।’ দল না জেতায় নিজের গোলটাও ইব্রাহিমের কাছে মূল্যহীন। তবে সামনের পথচলায় তা আত্মবিশ্বাস বাড়াবে বলে মনে করে তিনি। ২৪ বছর বয়সী ইব্রাহীম বলেন, তুর্কমেনিস্তানের বিপক্ষে গোল পাওয়াটা হয়তো পরের ম্যাচের আত্মবিশ্বাস বাড়াবে, কিন্তু ওই ম্যাচের ফল তো আর বদলাবে না। এই গোলেরও কোনো মূল্য নাই, যেহেতু আমরা পয়েন্ট পাইনি। তাই এই গোল নিয়ে আমার কোনো আত্মতৃপ্তি নেই।’ অল্প ক’দিনেই নিজের মতো করে দল গুছিয়ে নিয়েছেন নতুন কোচ হাভিয়ের কাবরেরা। এই স্প্যানিশ কোচের সঙ্গে দল মানিয়ে নিচ্ছে বলেও জানালেন ইব্রাহিম। নাইজেরিয়ান থেকে বাংলাদেশি হয়ে যাওয়া এলিটা কিংসলের দলে সুযোগ না পাওয়া ইস্যুতে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি তিনি।

RELATED ARTICLES
- Advertisment -
Google search engine

Most Popular

Recent Comments