Monday, May 27, 2024
spot_img
Homeআন্তর্জাতিককিয়েভের পতনের ঝুঁকি দেখে ইউরোপীয়রা রয়েছে উদ্বেগে

কিয়েভের পতনের ঝুঁকি দেখে ইউরোপীয়রা রয়েছে উদ্বেগে

ভাড়াটে যোদ্ধাদের সংখ্যা কমছে বিজনেস ইনসাইডার

ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ বলেছেন, রাশিয়ার চলমান বিশেষ সামরিক অভিযানের সময় ইউক্রেনের সম্পূর্ণপতনের ঝুঁকি বুঝতে পেরে পশ্চিমা দেশগুলো ইচ্ছাকৃতভাবে উত্তেজনা বাড়াচ্ছে। রাশিয়ার প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র ভিজিটিআরকে সাংবাদিক পাভেল জারুবিনকে বলেছেন, যিনি তার টেলিগ্রাম চ্যানেলে এই ভিডিওটি পোস্ট করেছেন, পশ্চিমা রাজনীতিবিদদের উস্কানিমূলক বক্তব্য ‘উত্তেজনা বৃদ্ধির ইচ্ছাকৃত চেষ্টা’।

পেসকভ বলেন, ‘ইউরোপীয়রা ভেঙে পড়েছে, কারণ পরিস্থিতি দ্রুত পরিবর্তন হচ্ছে, এবং এটি আসলে ইউক্রেনীয়দের জন্য সম্পূর্ণ পতনের সাথে পরিপূর্ণ। তাই তারা নিজেরাই এই পরিস্থিতিকে বাড়িয়ে তুলছে।’ পেসকভের মতে, বর্তমানে, ‘মুহূর্তটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ’। ‘অবশ্যই, এটি ইউরোপীয়দের পক্ষ থেকে অত্যন্ত উত্তেজক,’ পেসকভ উপসংহারে এসেছিলেন। সাম্প্রতিক মাসগুলিতে, পশ্চিমা রাজনীতিবিদরা অস্পষ্ট বিবৃতি দিয়ে এসেছেন। উদাহরণস্বরূপ, ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাখোঁ ইউক্রেনে পশ্চিমা সৈন্যদের সম্ভাব্য মোতায়েনের বিষয়ে আরও ঘন ঘন বিবৃতি দিচ্ছেন, রাশিয়ার সাথে সম্পর্কের ক্ষেত্রে ‘কৌশলগত অস্পষ্টতা’ তৈরি করার একটি ধারণা দিয়ে এটি ব্যাখ্যা করছেন। যুক্তরাজ্যের পররাষ্ট্র সচিব ডেভিড ক্যামেরন বলেছেন যে, ব্রিটিশ অস্ত্র নিয়ে রাশিয়ার ভূখণ্ডে কিয়েভের হামলায় লন্ডন আপত্তি করে না। রাশিয়া পুনর্ব্যক্ত করেছে যে, ইউক্রেনের সংঘাতে পশ্চিমা দেশগুলোর সরাসরি সম্পৃক্ততা অনিয়ন্ত্রিত বৃদ্ধিতে পরিপূর্ণ। পশ্চিমের আক্রমণাত্মক বিবৃতির জবাবে, মস্কো অ-কৌশলগত পারমাণবিক অস্ত্রের সম্ভাব্য ব্যবহার অনুশীলনের জন্য ক্ষেপণাস্ত্র মহড়া শুরু করছে।

এদিকে, ইউক্রেনের পক্ষে সংঘাতে যোগ দিতে যাওয়ার জন্য বিদেশী ভাড়াটে যোদ্ধাদের সংখ্যা ২০২২ সালের মার্চের তুলনায় দুই তৃতীয়াংশ কমেছে। ২০২২ সালের গ্রীষ্মে ইউক্রেনের যুদ্ধে অংশ নেয়া মার্কিন প্রবীণ সৈনিক কার্ল লারসনকে উদ্ধৃত করে এ তথ্য জানিয়েছে প্রভাবশালী বার্তা সংস্থা বিজনেস ইনসাইডার। এখন আগত ভাড়াটেদের অর্ধেক লাতিন আমেরিকা থেকে এসেছে। ‘তারা অর্থের জন্য আছে,’ লারসন উল্লেখ করেছেন। আমরা যুদ্ধে শক্তি বৃদ্ধি করেছিলাম,’ তিনি বলেন, ‘যদি রাশিয়ানরা আসত, আমরা হয়তো এক ঘণ্টার জন্য তাদের আটকে রাখতে পারতাম।’ রুশ ড্রোনের হামলায় অনেক ভাড়াটে নিহত হয়েছে, তিনি যোগ করেছেন। সূত্র : তাস।

RELATED ARTICLES
- Advertisment -
Google search engine

Most Popular

Recent Comments