করোনা ভাইরাস প্রাদুর্ভাবের খবর প্রকাশ হওয়ার বেশ আগেই চীনের উহানে অবস্থিত উহান ইনস্টিটিউট অব ভাইরোলজির (ডব্লিউআইভি) তিনজন গবেষক হাসপাতালে চিকিৎসা সেবা নিয়েছিলেন। আগের করা যুক্তরাষ্ট্রের একটি অপ্রকাশিত গোয়েন্দা রিপোর্টকে উদ্ধৃত করে প্রভাবশালী পত্রিকা ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল এ খবর দিয়েছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স। এতে বলা হয়, ২০১৯ সালের নভেম্বরে উহানে করোনা ভাইরাস প্রাদুর্ভাবের খবর মানুষ জানতে পারে। কিন্তু এরও কয়েক মাস আগে ডব্লিউআইভিতে কর্মরত তিনজন গবেষক অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন এবং তারা হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছিলেন। ওয়াল স্ট্রিল জার্নালের ওই রিপোর্টে ডব্লিউআইভির কতজন গবেষক প্রকৃতপক্ষে আক্রান্ত হয়েছিলেন, তাদের আক্রান্ত হওয়ার সময়কাল এবং হাসপাতালে তাদের চিকিৎসা নেয়ার সময়কাল সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য দেয়া হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, এসব তথ্যের ওপর ভিত্তি করে এটা নির্ধারণ করা যেতে পারে যে, প্রকৃতপক্ষে ওই গবেষণাগার থেকে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছিল কিনা। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার একটি গুরুত্বপূর্ণ বৈঠককে সামনে রেখে এই রিপোর্ট আলোর মুখ দেখেছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার এই বৈঠক থেকেই সিদ্ধান্ত নেয়া হবে করোনা ভাইরাসের প্রকৃত উৎস সম্পর্কে তদন্তের পরবর্তী ধাপ কি হবে।যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদের এক মুখপাত্র ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের এই রিপোর্ট সম্পর্কে কোনো মন্তব্য করেননি। তবে তিনি বলেছেন, করোনা ভাইরাস মহামারি প্রকৃতপক্ষে কোথা থেকে শুরু হয়েছে, এর উৎস চীন কিনা সে বিষয়ে গুরুত্বর প্রশ্ন এখনও রয়েছে প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন প্রশাসনের। তিনি বলেছেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ও অন্য কিছু সদস্য রাষ্ট্রের সঙ্গে কাজ করছে যুক্তরাষ্ট্র সরকার। এর মধ্য দিয়ে এই ভাইরাসের উৎস সন্ধানের চেষ্টা হচ্ছে। তাতে কোনো রকম হস্তক্ষেপ বা রাজনীতি থাকবে না।  উল্লেখ্য, করোনা ভাইরাসের উৎস সন্ধানে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নেতৃত্ব নিয়ে মার্চে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে যুক্তরাষ্ট্র, নরওয়ে, কানাডা, বৃটেন ও অন্যান্য দেশ। তারা এ বিষয়ে আরো তদন্ত দাবি করেছে। ভাইরাসটি ছড়িয়ে পড়ার প্রাথমিক পর্যায়ের মানুষ, পশু ও এ সংক্রান্ত অন্যান্য ডাটার পূর্ণাঙ্গ প্রাপ্তি দাবি করেছে। এক্ষেত্রে চীনের পক্ষ থেকে অধিকতর সহযোগিতা ও স্বচ্ছতা দাবি করেছে ওয়াশিংটন। এ বিষয়ে তাৎক্ষণিকভাবে রোববার কোনো মন্তব্য করেনি ওয়াশিংটনে অবস্থিত চীনা দূতাবাস।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

English