Sunday, June 23, 2024
spot_img
Homeধর্মআল্লাহ অহংকারীদের ভালোবাসেন না

আল্লাহ অহংকারীদের ভালোবাসেন না

অহংকার হচ্ছে সত্যকে প্রত্যাখ্যান করা এবং অন্যকে হীন, ক্ষীণ, দুর্বল ভাবা এবং তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য করা। এমনটিই বলেছেন রাসুলুল্লাহ (সা.)। আবদুল্লাহ বিন মাসউদ (রা.) থেকে বর্ণিত, রাসুলুল্লাহ (সা.) ইরশাদ করেছেন, ‘ওই ব্যক্তি জান্নাতে প্রবেশ করবে না, যার অন্তরে বিন্দু পরিমাণ অহংকার থাকবে।’ এক ব্যক্তি জিজ্ঞেস করল, নিশ্চয়ই একজন মানুষ পছন্দ করে যে তার পোশাক সুন্দর হোক এবং তার জুতা সুন্দর হোক।

তিনি বলেন, ‘নিশ্চয়ই আল্লাহ সুন্দর, তিনি সৌন্দর্য ভালোবাসেন। অহংকার হচ্ছে সত্য প্রত্যাখ্যান করা ও অন্যকে তুচ্ছজ্ঞান করা।’ (তিরমিজি, হাদিস : ১৯৯৯)উদ্ধত ও অহংকারী স্বভাবের মানুষ জান্নাতে যাবে না। আল্লাহ বলেন, ‘নিশ্চয়ই যারা আমার আয়াতসমূহকে মিথ্যা বলে এবং তা থেকে অহংকারভরে মুখ ফিরিয়ে নেয়, তাদের জন্য আকাশের দরজাগুলো উন্মুক্ত করা হবে না এবং তারা জান্নাতে প্রবেশ করবে না, যে পর্যন্ত না সুচের ছিদ্রপথে উষ্ট্র প্রবেশ করে।

এভাবেই আমরা অপরাধীদের শাস্তি প্রদান করে থাকি।’ (সুরা : আরাফ, আয়াত : ৪০)অহংকারীদের পরিণতি সম্পর্কে রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেন, ‘অহংকারী ব্যক্তিরা কিয়ামতের দিন উঠবে মানুষের রূপে পিঁপড়াসদৃশ অবস্থায়। চারদিক থেকে লাঞ্ছনা তাদের বেষ্টন করে রাখবে। অতঃপর তাদের ‘বুলাস’ নামক জাহান্নামের এক কারাগারের দিকে হাঁকিয়ে নিয়ে যাওয়া হবে।

যেখানে লেলিহান অগ্নি তাদের ঢেকে ফেলবে। সেখানে তারা জাহান্নামিদের গলিত পুঁজ-রক্ত ‘ত্বিনাতুল খাবাল’ পান করানো হবে।’ (তিরমিজি, হাদিস : ২৪৯২)আল্লাহ অহংকারীকে পছন্দ করেন না। আল্লাহ বলেন, ‘আর তুমি অহংকারবশে মানুষ থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়ো না এবং জমিনে উদ্ধতভাবে চলাফেরা কোরো না। নিশ্চয়ই আল্লাহ কোনো দাম্ভিক ও অহংকারীকে ভালোবাসেন না। (সুরা : লোকমান, আয়াত : ১৮)

অহংকারী ব্যক্তি জাহান্নামে যাবে। মহান আল্লাহ বলেন, ‘নিশ্চয়ই যারা আমার ইবাদত থেকে অহংকার প্রদর্শন করে। তারা সত্বর জাহান্নামে প্রবেশ করবে লাঞ্ছিত অবস্থায়।’ (সুরা : মুমিন/গাফের, হাদিস : ৬০)

অহংকারী মানুষের স্বভাব সম্পর্কে রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেন, ‘আমি কি তোমাদের জাহান্নামিদের সম্পর্কে অবহিত করব না? তারা হলো প্রত্যেকে রূঢ় স্বভাব, কঠিন হৃদয় ও দাম্ভিক ব্যক্তি।’ (বুখারি, হাদিস : ৪৯১৮)

মহানবী (সা.) বলেন, ‘জান্নাত ও জাহান্নামের মধ্যে তর্ক-বিতর্ক হলো, জাহান্নাম বলল, যত স্বৈরাচারী, জালিম ও অহংকারী আমার মধ্যে প্রবেশ করবে। …আল্লাহ জাহান্নামকে বলেন, তুমি আমার আজাব। আমি তোমার দ্বারা যার থেকে ইচ্ছা প্রতিশোধ গ্রহণ করব।’ (মুসনাদে আহমাদ, হাদিস : ১১৭৭১; সহিহুত তারগিব, হাদিস : ৩২০০)

অন্যদিকে অহংকার পরিত্যাগ করার বিনিময়ে জান্নাতের প্রতিশ্রুতি আছে। আল্লাহ বলেন, ‘আখিরাতের এই গৃহ আমরা প্রস্তুত করে রেখেছি ওই সব মুমিনের জন্য, যারা দুনিয়াতে ঔদ্ধত্য ও বিপর্যয় কামনা করে না। বস্তুত শুভ পরিণাম শুভ আল্লাহভীরুদের জন্য।’ (সুরা : কাসাস, আয়াত : ৮৩)

RELATED ARTICLES
- Advertisment -
Google search engine

Most Popular

Recent Comments